০৩:৪৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

করোনায় মারা গেলেন বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান

  • Update Time : ০৯:১৪:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ এপ্রিল ২০২১
  • ৭১ Time View

স্টাফ রিপোর্টার: বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খান আর নেই। করোনায় আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার রাতে তিনি ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না লিল্লাহি রাজিউন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭৫ বছর।

বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ জানান, করোনায় আক্রান্ত হয়ে ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান ইমপালস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। রাত ১০টায় তিনি মারা যান।

ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান ঢাকা-২০ আসন থেকে বিএনপির ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে চারবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। দীর্ঘদিন আইন পেশার সাথে সম্পৃক্ত ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খান সুপ্রিম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী ছিলেন। মৃত্যুকালে স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে রেখে গেছেন।

পরিবারের সদস্যরা জানান, মরহুমের একমাত্র ছেলেও করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খানের বাবা ছিলেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী আতাউর রহমান খান।

তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি ডা. দেওয়ান সালাউদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আবু আশফাক।

Tag :
জনপ্রিয়

বাংলাদেশে সহিংস আক্রমণ থেকে বিক্ষোভকারীদের রক্ষার আহ্বান জাতিসংঘের

করোনায় মারা গেলেন বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান

Update Time : ০৯:১৪:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ এপ্রিল ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার: বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খান আর নেই। করোনায় আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শনিবার রাতে তিনি ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না লিল্লাহি রাজিউন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭৫ বছর।

বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ জানান, করোনায় আক্রান্ত হয়ে ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান ইমপালস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। রাত ১০টায় তিনি মারা যান।

ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান ঢাকা-২০ আসন থেকে বিএনপির ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে চারবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। দীর্ঘদিন আইন পেশার সাথে সম্পৃক্ত ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খান সুপ্রিম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী ছিলেন। মৃত্যুকালে স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে রেখে গেছেন।

পরিবারের সদস্যরা জানান, মরহুমের একমাত্র ছেলেও করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ব্যারিস্টার জিয়াউর রহমান খানের বাবা ছিলেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী আতাউর রহমান খান।

তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি ডা. দেওয়ান সালাউদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আবু আশফাক।