০৭:২৫ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ২২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ভাবিকে খুন করে দোকানে বসে কলা খাচ্ছিলেন আব্দুর রব

  • MD Abdulla Haq
  • Update Time : ০৭:৩৩:৩৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৬ অগাস্ট ২০২৩
  • ২৬ Time View

ফরিদপুরে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জের ধরে ভাবিকে কুপিয়ে হত্যার পর মোড়ের দোকানে বসে কলা খাচ্ছিলেন আব্দুর রব মিয়া (৭০)। খবর পেয়ে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করেছে।

এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কোতোয়ালি থানার ওসি মো. এমএ জলিল জানান, বুধবার দুপুরে খবর পেয়ে শহরের কমলাপুরের লালের মোড় থেকে আব্দুর রব মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়। ফেসবুকে দোকানে বসে আব্দুর রবের কলা খাওয়ার ভিডিও দেখতে পেয়ে পুলিশ তাকে গ্রেফতারে অভিযান চালায়।

এর আগে, মঙ্গলবার বিকেলে কমলাপুর লালের মোড় এলাকার একটি বাড়িতে বড় ভাই রাজা মিয়ার স্ত্রী মাজেদা পারভিনকে চাপাতি দিয়ে খুন করেন রব মিয়া। এ ঘটনায় কোতোয়ালি থানায় রব মিয়াকে একমাত্র আসামি করে মামলা দায়ের করেন নিহতের ছেলে রুহুল আমীন।

রুহুল আমিন বলেন, চাচা আব্দুর রব ২২ শতাংশ জমি বিক্রি করেন আমাদের কাছে। অনেক আগেই তার টাকা পরিশোধ করা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে তিনি আবারো কিছু টাকা দাবি করেন। দিতে না পারায় হাতে থাকা চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে মাকে হত্যা করেন।

জানা যায়, শহরের কমলাপুর লালের মোড় এলাকার বাসিন্দা রাজা মিয়ার স্ত্রী মাজেদা পারভিনকে বাড়িতে ঢুকে অতর্কিতভাবে কুপিয়ে হত্যা করেন তার দেবর আব্দুর রব। পরে চাপাতি পুকুরে ফেলে পালিয়ে যান আব্দুর রব।

এদিকে এ হত্যাকাণ্ডের পর বুধবার দুপুরে একটি ভিডিও পোস্টে দেখা যায় আব্দুর রব মিয়া দোকানে বসে কলা খাচ্ছেন। পরে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।

কোতোয়ালি থানার ওসি এমএ জলিল আরো জানান, পারিবারিক সম্পত্তির বিরোধ নিয়ে এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে।

Tag :
About Author Information

MD Abdulla Haq

চুয়াডাঙ্গায় প্রায় কোটি টাকার স্বর্ণসহ দর্শনার তাছলিমা আটক

ভাবিকে খুন করে দোকানে বসে কলা খাচ্ছিলেন আব্দুর রব

Update Time : ০৭:৩৩:৩৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৬ অগাস্ট ২০২৩

ফরিদপুরে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জের ধরে ভাবিকে কুপিয়ে হত্যার পর মোড়ের দোকানে বসে কলা খাচ্ছিলেন আব্দুর রব মিয়া (৭০)। খবর পেয়ে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করেছে।

এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কোতোয়ালি থানার ওসি মো. এমএ জলিল জানান, বুধবার দুপুরে খবর পেয়ে শহরের কমলাপুরের লালের মোড় থেকে আব্দুর রব মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়। ফেসবুকে দোকানে বসে আব্দুর রবের কলা খাওয়ার ভিডিও দেখতে পেয়ে পুলিশ তাকে গ্রেফতারে অভিযান চালায়।

এর আগে, মঙ্গলবার বিকেলে কমলাপুর লালের মোড় এলাকার একটি বাড়িতে বড় ভাই রাজা মিয়ার স্ত্রী মাজেদা পারভিনকে চাপাতি দিয়ে খুন করেন রব মিয়া। এ ঘটনায় কোতোয়ালি থানায় রব মিয়াকে একমাত্র আসামি করে মামলা দায়ের করেন নিহতের ছেলে রুহুল আমীন।

রুহুল আমিন বলেন, চাচা আব্দুর রব ২২ শতাংশ জমি বিক্রি করেন আমাদের কাছে। অনেক আগেই তার টাকা পরিশোধ করা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে তিনি আবারো কিছু টাকা দাবি করেন। দিতে না পারায় হাতে থাকা চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে মাকে হত্যা করেন।

জানা যায়, শহরের কমলাপুর লালের মোড় এলাকার বাসিন্দা রাজা মিয়ার স্ত্রী মাজেদা পারভিনকে বাড়িতে ঢুকে অতর্কিতভাবে কুপিয়ে হত্যা করেন তার দেবর আব্দুর রব। পরে চাপাতি পুকুরে ফেলে পালিয়ে যান আব্দুর রব।

এদিকে এ হত্যাকাণ্ডের পর বুধবার দুপুরে একটি ভিডিও পোস্টে দেখা যায় আব্দুর রব মিয়া দোকানে বসে কলা খাচ্ছেন। পরে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।

কোতোয়ালি থানার ওসি এমএ জলিল আরো জানান, পারিবারিক সম্পত্তির বিরোধ নিয়ে এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে।