০২:৪৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

যে দোয়া ১০ বার পড়লে গুনাহ করার ইচ্ছা জাগবে না

  • Update Time : ১১:০২:১৫ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ জুলাই ২০২৩
  • ৩৮ Time View

 

 

ধর্ম ডেস্ক: যে দোয়া ১০ বার পড়লে গুনাহ করার ইচ্ছা জাগবে না শয়তানের প্রবঞ্চনা থেকে এবং গুনাহের কাজ থেকে বিরত রাখা হবে—এমন এক দোয়ার উল্লেখ রয়েছে হাদিসে। গুনাহ থেকে বেঁচে থাকার জন্য আমরা আমলটি করতে পারি। বলা হয়েছে, ওই দোয়াটি ১০ বার পাঠ করার কারণে শয়তানের যাবতীয় অনিষ্ট থেকে পাঠকারীকে বাঁচিয়ে রাখা হবে এবং সারাদিন কোনো গুনাহ তার কাছে ঘেঁষতে পারবে না।

দোয়াটি হলো— لاَ إِلَهَ إِلاَّ اللَّهُ وَحْدَهُ لاَ شَرِيكَ لَهُ لَهُ الْمُلْكُ وَلَهُ الْحَمْدُ يُحْيِي وَيُمِيتُ وَهُوَ عَلَى كُلِّ شَيْءٍ قَدِيرٌ ‘লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু ওয়াহদাহু লা শারীকা লাহু, লাহুল মুলকু ওয়ালাহুল হামদু ইউহয়ী ওইউমীতু ওয়াহুয়া আলা কুল্লি শাইয়িন কাদীর।’ অর্থ: ‘একমাত্র আল্লাহ ছাড়া আর কোনো উপাস্য নেই। তাঁর কোনো শরিক নেই। সর্বরাজত্ব তাঁরই। সমস্ত প্রশংসাও তাঁর। তিনিই জীবন দান করেন ও মৃত্যু দান করেন। আর তিনিই সবকিছুর উপর সর্বশক্তিমান’

হজরত আবু জার (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসুলুল্লাহ (স.) বলেছেন, ‘যে ব্যক্তি ফজরের পর, হাঁটু মোড়া অবস্থাতেই কারো সঙ্গে কথা বলার আগে দোয়াটি ১০ বার পড়বে তার জন্যে ১০টি পূণ্য লেখা হবে, তার ১০টি গুনাহ মাফ করা হবে, তার ১০টি মর্যাদা বুলন্দ করা হবে। পুরোটা দিন সে সবরকম অপ্রীতিকর বিষয় থেকে সুরক্ষিত থাকবে। শয়তানের অনিষ্ট থেকে তাকে বাঁচিয়ে রাখা হবে। সেদিন আল্লাহর সঙ্গে শিরকের গুনাহ ছাড়া আর কোনো গুনাহ তার কাছে ঘেঁষতে পারবে না।’ (তিরমিজি: ৩৪৭৪) গুনাহের ইচ্ছা, গোনাহ মাফের দোয়া, সমুদ্রের ফেনা পরিমাণ গুনাহ মাফের দোয়া, জিনার গুনাহ মাফের দোয়া, ৮০ বছরের গুনাহ মাফের দোয়া বাংলা, কবিরা গুনাহ মাফের দোয়া, কবিরা গুনাহ মাফের উপায়, কবিরা গুনাহ মাফের তওবা, গুনাহ মাফের শ্রেষ্ঠ দোয়া

আল্লাহ তাআলা আমাদেরকে দোয়াটি ফজরের পর কারো সঙ্গে কথা বলার আগে প্রতিদিন ১০ বার পাঠ করার তাওফিক দান করুন। আমিন

Tag :
জনপ্রিয়

নীলমনিগনজ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের এস এস সি ৯৭ ব্যাচের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠিত

যে দোয়া ১০ বার পড়লে গুনাহ করার ইচ্ছা জাগবে না

Update Time : ১১:০২:১৫ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ জুলাই ২০২৩

 

 

ধর্ম ডেস্ক: যে দোয়া ১০ বার পড়লে গুনাহ করার ইচ্ছা জাগবে না শয়তানের প্রবঞ্চনা থেকে এবং গুনাহের কাজ থেকে বিরত রাখা হবে—এমন এক দোয়ার উল্লেখ রয়েছে হাদিসে। গুনাহ থেকে বেঁচে থাকার জন্য আমরা আমলটি করতে পারি। বলা হয়েছে, ওই দোয়াটি ১০ বার পাঠ করার কারণে শয়তানের যাবতীয় অনিষ্ট থেকে পাঠকারীকে বাঁচিয়ে রাখা হবে এবং সারাদিন কোনো গুনাহ তার কাছে ঘেঁষতে পারবে না।

দোয়াটি হলো— لاَ إِلَهَ إِلاَّ اللَّهُ وَحْدَهُ لاَ شَرِيكَ لَهُ لَهُ الْمُلْكُ وَلَهُ الْحَمْدُ يُحْيِي وَيُمِيتُ وَهُوَ عَلَى كُلِّ شَيْءٍ قَدِيرٌ ‘লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু ওয়াহদাহু লা শারীকা লাহু, লাহুল মুলকু ওয়ালাহুল হামদু ইউহয়ী ওইউমীতু ওয়াহুয়া আলা কুল্লি শাইয়িন কাদীর।’ অর্থ: ‘একমাত্র আল্লাহ ছাড়া আর কোনো উপাস্য নেই। তাঁর কোনো শরিক নেই। সর্বরাজত্ব তাঁরই। সমস্ত প্রশংসাও তাঁর। তিনিই জীবন দান করেন ও মৃত্যু দান করেন। আর তিনিই সবকিছুর উপর সর্বশক্তিমান’

হজরত আবু জার (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসুলুল্লাহ (স.) বলেছেন, ‘যে ব্যক্তি ফজরের পর, হাঁটু মোড়া অবস্থাতেই কারো সঙ্গে কথা বলার আগে দোয়াটি ১০ বার পড়বে তার জন্যে ১০টি পূণ্য লেখা হবে, তার ১০টি গুনাহ মাফ করা হবে, তার ১০টি মর্যাদা বুলন্দ করা হবে। পুরোটা দিন সে সবরকম অপ্রীতিকর বিষয় থেকে সুরক্ষিত থাকবে। শয়তানের অনিষ্ট থেকে তাকে বাঁচিয়ে রাখা হবে। সেদিন আল্লাহর সঙ্গে শিরকের গুনাহ ছাড়া আর কোনো গুনাহ তার কাছে ঘেঁষতে পারবে না।’ (তিরমিজি: ৩৪৭৪) গুনাহের ইচ্ছা, গোনাহ মাফের দোয়া, সমুদ্রের ফেনা পরিমাণ গুনাহ মাফের দোয়া, জিনার গুনাহ মাফের দোয়া, ৮০ বছরের গুনাহ মাফের দোয়া বাংলা, কবিরা গুনাহ মাফের দোয়া, কবিরা গুনাহ মাফের উপায়, কবিরা গুনাহ মাফের তওবা, গুনাহ মাফের শ্রেষ্ঠ দোয়া

আল্লাহ তাআলা আমাদেরকে দোয়াটি ফজরের পর কারো সঙ্গে কথা বলার আগে প্রতিদিন ১০ বার পাঠ করার তাওফিক দান করুন। আমিন