এখন পর্যন্ত এ খবরটি সর্বমোট দেখা হয়েছে 349 

সাইদুর রহমানঃ করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সামাজিক সচেতনতায় শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার কথা বলা হলেও চুয়াডাঙ্গার বেশির ভাগ এলাকার চিত্রই ভিন্ন। করোনার কারণে শহরে সে রকম কোনো সচেতনতা লক্ষ করা যায়নি। বরং প্রায় স্বাভাবিক ভাবেই চলাফেরা ও একে অপরের সাথে মেলামেশা করছেন এখানকার বাসিন্দারা। এমনিতেই সীমান্ত এলাকা হওয়ায় এখানে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি বেশি, তার ওপর এরকম অবাধ চলাফেরা ও মেলামেশার কারণে ভয়াবহ সংক্রমণের ঝুঁকিতে রয়েছে চুয়াডাঙ্গা। শহরবাসী এক কথায় প্রশাসনের সব সচেতনতামূলক পরামর্শ ও নিষেধাজ্ঞা অমান্য করছেন। করোনা প্রতিরোধে ঘোষিত ছুটির চার দিন পার হতে না হতেই শহর যেন স্বাভাবিক সময়ের চেহারায় ফিরে গেছে। বাজার ও দোকানপাটে একজন আরেকজনের গা ঘেঁষে দাঁড়িয়ে কেনাকাটা করছেন। এক ক্রেতার হাতে অন্য ক্রেতার হাত লাগছে। হাতে গ্লাভস পরা ক্রেতা একেবারেই চোখে পড়ে না। কিছু ক্রেতা মাস্ক ব্যবহার করলেও মাস্ক ছাড়া ক্রেতার সংখ্যাই বেশি। আবার পাশাপাশি দাঁড়ানো কোনো একজন হাঁচি-কাশি দিলে পাশের লোকটি মুখটা একটু ঘুরিয়ে সরে যাচ্ছেন, ব্যস এটুকুই। গত দুই দিন সরেজমিন চুয়াডাঙ্গার বড় বাজার, ভালাইপুর মোড় সহ বিভিন্ন কাঁচাবাজার ঘুরে দেখা গেছে এমন চিত্র। জনসাধারণের এমন অসচেতনতায় করোনাভাইরাস দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।
সকাল সাড়ে ৯টার দিকে শহরের বড় বাজার ঘুরে দেখা যায়, প্রয়োজনীয় কাঁচাবাজার, চাল, ডাল ও মাছ-গোশত কিনতে নানা বয়সী নারী-পুরুষের ভিড়। এই ভিড় ঠেলে সবাই যে যার মতো কেনাকাটা করছেন। করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে সরকারের পক্ষ থেকে একে অন্যের সাথে শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখার কথা বলা হলেও তার ছিটেফোঁটাও দেখা যায়নি। বাজারে মাছ কিনতে আসা মুখে মাস্ক পরা সুমন পারভেজ নামে এক ক্রেতা বলেন, ভিড়ের মধ্যে ঠেলাঠেলি করে কেনাকাটা করতে হচ্ছে। বেশির ভাগ লোকই সচেতন নয়, মুখে মাস্কও নেই। যার ফলে প্রয়োজনে বাজারে এসে অস্বস্তিতে ভুগছি। বাজারে মজুরের কাজ করেন হাবিব দিনমজুর নামের এক ব্যক্তি। চালের দোকানের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন তিনি। তার মুখে মাস্ক কিংবা হাতে গ্লাভস নেই। ‘করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব চলছে, কেন মাস্ক পরেন না পরায় জহুরুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমি বস্তা টানি, মাস্ক পরলে শ্বাস নিতে কষ্ট হয়। আল্লাহই আমাদেরকে ভাইরাস থেকে রক্ষা করবেন।’

মাছের বাজারেও একই অবস্থা। এখানেও ভিড় ঠেলাঠেলি করে লোকজনকে কেনাকাটা করতে দেখা গেছে। রাব্বি নামের একজন মাছ কিনছিলেন। মুখে মাস্ক পরেননি। এর কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘ভাইরাস থেকে সুরক্ষায় মাস্ক পরা ভালো। বাজারে আসার সময় মাস্ক সাথে আনতে ভুলে গিয়েছিলাম।’
বড় বাজার চৌরাস্তার মোড়ে গিয়ে দেখা যায়, অসংখ্য নারী-পুরুষের ভিড়। বেশির ভাগের মুখেই মাস্ক নেই, গ্লাভস তো দূরের কথা। এ বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশ না করে এক নারী বলেন, ‘করোনাভাইরাসের কারণে মাস্ক পরা উচিত। কিন্তু রোজকার বাজারের টাকাই তো জোগাড় করা কষ্ট, সেখানে মাস্ক কিনমু কি দিয়া।’ আওয়াল নামের এক ব্যক্তি মাস্ক পরেছেন, হাতে রয়েছে গ্লাভস। তিনি বলেন, আমাদের দেশের লোকজন এখনো করোনাভাইরাসকে গায়ে মাখছেন না। এই ভাইরাস যে কতটা ভয়াবহ সেটা আমলে নিচ্ছেন না অনেকেই। আমাদের বেশির ভাগ লোকই ইতালি, স্পেনে করোনাভাইরাসে ভয়াল থাবার কথা জানে বলে মনে হয় না। জানলে এতটা অসচেতন হতে পারত না। এই ভাইরাস থেকে বাঁচতে জনসচেতনতা অত্যন্ত জরুরি।
চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার বলেন, প্রশাসনের পক্ষ থেকে মানুষকে সচেতন করার কাজ প্রতিনিয়তই করা হচ্ছে। মাইকিং থেকে শুরু করে লিফলেট বিতরণসহ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের সাথে পুলিশ ও সেনা সদস্যরা কাজ করছেন। এখন প্রত্যেককেই সচেতন হতে হবে। যে দেশগুলো এটা মানেনি তাদের অবস্থা খুব একটা ভালো না। তাই প্রত্যেককে সচেতন হতে হবে, সামাজিক দূরত্ব বাজার রেখে চলতে হবে। তিনি আরো বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলে যার যার ঘরে থাকাই ভালো। অপ্রয়োজনে বাইরে না বেরিয়ে নিরাপদে ঘরে থাকা এখন সময়ের দাবি।


মতামত জানান

Your email address will not be published. Required fields are marked *

RSS Bangla Tribune

  • সরকার ‘মুক্তিযুদ্ধকালীন সরকার’কে স্বীকৃতি দেয়নি: সাইফুল হক April 10, 2021
    বিপ্লবী ওয়াকার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বলেছেন, ১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিল গৃহীত “স্বাধীনতার আদেশ ঘোষণা” দলিল মুক্তিযুদ্ধকালীন সরকারের রাজনৈতিক, আইনগত ও নৈতিক ভিত্তি নিশ্চিত করে। নবগঠিত সরকারের আন্তর্জাতিক স্বীকৃতির পথও প্রশস্ত করে। কিন্তু বর্তমান সরকার তাদের হীনমন্যতার কারণে তাজউদ্দিন আহমেদ এর নেতৃত্বাধীন মুক্তিযুদ্ধকালীন সরকারকে উপযুক্ত স্বীকৃতি ও মর্যাদা দেয়নি। শনিবার (১০... বিস্তারিত
  • মামুনুলের কথিত স্ত্রী জান্নাত 'নিখোঁজ', নিরাপত্তা চেয়ে ছেলের জিডি April 10, 2021
    হেফাজত নেতা মামুনুল হকের কথিত স্ত্রী জান্নাত আরা স্বর্ণার নিখোঁজ ও জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সাধারণ ডায়েরি করেছেন ঝর্নার বড় ছেলে আব্দুর রহমান। শনিবার ১০ এপ্রিল পল্টন থানায় আব্দুর রহমান সাধারণ ডায়েরি করেন। আব্দুর রহমান তার সাধারণ ডায়েরিতে বলেন, আমি বেশ কিছুদিন ধরে আমার মা জান্নাত আরা ঝর্ণার সাথে যোগাযোগ করতে না পেরে ধানমন্ডির নর্থ সার্কুলার […]
  • বাজারে নতুন মার্সেল মোবাইলফোন April 10, 2021
    দেশের মোবাইলফোন বাজারে যাত্রা শুরু হলো আরেকটি বাংলাদেশি ব্র্যান্ড মার্সেলের। শুরুতেই ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ ট্যাগযুক্ত ফিচার ফোন বাজারে ছেড়েছে অন্যতম জনপ্রিয় এই ব্র্যান্ড। খুব শিগগিরই স্মার্টফোন আনছে তারা। এর আগে ফ্রিজ, টিভি, এসিসহ বিভিন্ন ইলেকট্রনিক্স, ইলেকট্রিক্যাল ও হোম অ্যাপ্লায়েন্স পণ্য দিয়ে দেশীয় ক্রেতাদের মন জয় করে নিয়েছে মার্সেল। বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল ২০২১) রাজধানীর মার্সেল... বিস্তারিত
  • পটিয়া থানা ভাঙচুরের অভিযোগে ৫ হেফাজত কর্মী গ্রেফতার April 10, 2021
    থানায় ভাঙচুরের ঘটনায় হেফাজতে ইসলামের ৫ কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (৯ এপ্রিল) রাতভর পটিয়া উপজেলার জিরি, শোভনদন্ডী ও কচুয়াই ইউনিয়নে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয় বলে জানিয়েছেন পটিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম মজুমদার। গ্রেফতার পাঁচজন হলেন- জসীম উদ্দিন (৪২), খোরশেদ আলম (৪৫), ইমতিয়াজ হোসেন (৪০), আজিজুল ইসলাম (৪৫) ও মো. বেলাল […]
  • বাঁচার জন্য ট্রাক থেকে লাফিয়ে আরেক ট্রাকের তলায় April 10, 2021
    বগুড়ার শাজাহানপুরে নিয়ন্ত্রণ হারানো ট্রাক থেকে মহাসড়কে লাফ দিয়েও বাঁচতে পারলেন না চালক সাইফুল ইসলাম (২৮)। নিজের ট্রাক থেকে রক্ষা পেলেও ঠিক পেছনে থাকা অপর ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার রাতে উপজেলার বেতগাড়ি এলাকায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। শাজাহানপুর থানার এসআই আল আমিন এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। ট্রাকচালক সাইফুল ইসলাম […]
মাত্র পাওয়া: